IIT Kharagpur: ইতিহাস গড়লো আইআইটি খড়গপুর! বিরাট অঙ্কের টাকার চাকরির অফার পেলেন পড়ুয়ারা!

IIT Kharagpur

দেশের অন্যতম শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আইআইটি খড়গপুর। প্রতিবছর প্রচুর সংখ্যক শিক্ষার্থীদের সমাবেশ ঘটে এখানে। বহু শিক্ষার্থীর সফলতার সাক্ষী এই প্রতিষ্ঠান। এবার চাকরির ক্ষেত্রে নতুন রেকর্ড আইআইটির। এখানকার ২০২১-২২ প্লেসমেন্ট সেশনের প্রথম পর্বে চাকরি পেয়েছেন ১৬০০ জন। এবং ইন্টার্নশিপের অফার পেয়েছেন প্রায় ৯০০ জন পড়ুয়া। এছাড়া দেশের সমস্ত আইআইটি প্রতিষ্ঠানকে পেরিয়ে প্রায় ৪৮ জন শিক্ষার্থী সুযোগ পেলেন পঞ্চাশ লক্ষ থেকে ২.৬ কোটি টাকার চাকরিতে যুক্ত হওয়ার।

আইআইটি খড়গপুরকে দেশের অন্যতম নামকরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের তালিকায় রাখা হয়। বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মেধাবি পড়ুয়ারা পড়তে আসেন এখানে। বছরের প্লেসমেন্ট সেশনে চাকরিতে নিযুক্ত হন পড়ুয়ারা। বিভিন্ন নামজাদা কোম্পানির তরফে পড়ুয়াদের চাকরির অফার দেওয়া হয়। সেরকমই ২০২১-২২ সালের আইআইটি খড়গপুরের প্লেসমেন্ট পর্বে চাকরির অফার পান অসংখ্য পড়ুয়ারা। সফটওয়্যার, উচ্চ স্তরের কোডিং, বিশ্লেষণ, পরামর্শ, কোর-ইঞ্জিনিয়ারিং সহ বিভিন্ন কোম্পানি থেকে চাকরির অফার আসে। বিভিন্ন সেক্টরের ৩০০টিরও বেশি কোম্পানি ব্যাঙ্কিং, ফাইনান্স, হাই-ফ্রিকোয়েন্সি ট্রেডিং প্রভৃতি ক্ষেত্রে চাকরির অফার দেওয়া হয় পড়ুয়াদের।

FB Join

চাকরির খবরঃ ইলেকট্রনিক্স দপ্তরে বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ

এবারের ক্যাম্পাসিংয়ে অংশগ্রহণ করা সংস্থাগুলির মধ্যে ছিল এয়ারবাস, অ্যাকসেন্টর জাপান, গুগল, মাইক্রোসফট, এক্সেল, টাটা স্টিল, হিন্দুস্তান ইউনিলিভার, কুয়ালাকাম, জাগুয়ার ল্যান্ড রোভার, বাজাজ অটো এর মতো কোম্পানিগুলি। ক্যাম্পাসিংয়ের প্রথম পর্বেই আইআইটি খড়গপুর থেকে চাকরি পেয়েছেন প্রচুর সংখ্যক মেধাবি পড়ুয়ারা। প্রায় ৪৫টিরও বেশি আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলি থেকে চাকরির অফার এসেছে। ইতিমধ্যেই খড়গপুর ক্যারিয়ার ডেভেলপমেন্ট সেন্টারের চেয়ারম্যান এ রাজাকুমারের কথায়, খড়গপুর আইআইটির পাঠ্যক্রম প্রণালী ও পড়ুয়াদের দক্ষতার ফলেই এহেন রেকর্ড গড়া সম্ভব হয়েছে। জানা যাচ্ছে, আগামী ২৪শে ডিসেম্বর আয়োজিত হবে সমাবর্তন অনুষ্ঠান। ও জানুয়ারির দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে শুরু হবে ক্যাম্পাসিংয়ের দ্বিতীয় পর্যায়টি।

আইআইটি খড়গপুরের প্লেসমেন্ট প্রোগ্রামের প্রথম পর্যায়ে চাকরির অফার পেয়েছেন প্রায় ১৬০০ জন ও ইন্টার্নশিপের অফার পেয়েছেন ৯০০ জন পড়ুয়া। পুরো প্রক্রিয়াটির জন্য সময় লেগেছে প্রায় ১২ দিন। বর্তমানে এখানকার ক্যারিয়ার ডেভেলপমেন্ট সেন্টারের তরফে আশা করা হচ্ছে প্লেসমেন্টের দ্বিতীয় পর্যায়ে আরও অনেক কোম্পানি পড়ুয়াদের প্লেসমেন্ট ও ইন্টার্নশিপের সুযোগ দেবে।