SSC Scam: নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় সামনে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য! সাদা খাতায় চাকরি সংখ্যা ১৫০

SSC Scam

SSC র নিয়োগ দুর্নীতি মামলা নিয়ে প্রকাশ পেল চাঞ্চল্যকর তথ্য। এদিন আদালতে প্রকাশ করা হয় বিষয়টি। বিচারপতির সামনে এসএসসির তরফে স্বীকারোক্তি, উচ্চ প্রাথমিকে নবম, দশম শ্রেণীর শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় সাদা খাতা জমা দেওয়ার পরও চাকরি পাওয়া প্রার্থীর সংখ্যা ১৫০ জন।

স্কুল সার্ভিস কমিশন (এসএসসি)-র নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে জল্পনা চলছেই। আদালতে বিচারাধীন একাধিক মামলা। নবম, দশম শ্রেণীর শিক্ষক নিয়োগ নিয়েও দুর্নীতি অব্যাহত। সাদা খাতা জমা দিয়ে নম্বর পাওয়া থেকে কম নম্বরের প্রার্থীদের ‘বিশেষ সুবিধা’ প্রয়োগের মাধ্যমে নিয়োগ, সব ক্ষেত্রেই দুর্নীতির হদিশ মিলেছে। এদিন আদালতে শুনানি ছিল নবম, দশম শ্রেণীর নিয়োগ দুর্নীতি মামলার। সেখানে বিচারপতির সামনে জানানো হয়, এসএসসির নিয়োগে সাদা খাতা জমা দেওয়ার পরেও চাকরি মিলেছে বহু প্রার্থীর। এবং সংখ্যাটা প্রায় ১৫০!

চাকরির খবরঃ এসএসসি-র নিয়োগ প্রক্রিয়া বন্ধ করলো হাইকোর্ট

প্রসঙ্গত, এসএসসির তরফে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে নবম, দশম শ্রেনীর শিক্ষক নিয়োগের বন্দোবস্ত করা হয়। নিয়োগ কর্মসূচিতে থাকেন পাঁচ সদস্যের বিশেষজ্ঞ কমিটি। যাদের সুপারিশেই নিয়োগ করা হয় প্রার্থীদের। তবে জল্পনাটা এখানেই! এই নিয়োগ কর্মসূচি নিয়ে সৃষ্টি হয় জটিলতার। অভিযোগ আসে, এমন বেশ কিছু প্রার্থীকে সুপারিশ করা হয় যাদের প্যানেলে নাম ছিল অনেক প্রার্থীর পরে। আবার আলাদা করা বেশ কিছু প্রার্থীকে দুবার করে নিয়োগের সুপারিশ ও দেওয়া হয় এসএসসির তরফে।

বিষয়টি অবতারণার পর ক্ষুব্ধ হন বিচারপতি। তিনি বলেন, বেআইনিভাবে চাকরি পাওয়া এই প্রত্যেক প্রার্থীর চাকরি বাতিল করা হবে। সেই অনুযায়ী নির্দেশ দেওয়া হয়, এই সকল প্রার্থীদের নামের তালিকা আদালতে জমা করতে। এদিন এই প্রার্থীদের নামের তালিকাই পেশ করা হলো আদালতে। যেখানে রয়েছেন প্রায় ১৫০ জন প্রার্থী। বিচারপতি বলেন, এসএসসির নিয়োগে এহেন দুর্নীতির ফলেই সত্যিকারের মেধাবিরা চাকরি পাননি। সূত্রের খবর, এই তালিকা আদালতে পেশ হওয়ার পরবর্তীতে বিচারপতির তরফে কি সিদ্ধান্ত হয়, তা জানা যাবে শীঘ্রই।