Primary TET 2022: প্রাইমারি টেট পরীক্ষায় বড়ো পরিবর্তন! কোয়েশ্চেন বুকলেট বাড়ি আনতে পারবে পরীক্ষার্থীরা

Primary TET 2022

এবছরের প্রাইমারি টেট পরীক্ষা নিয়ে বড়ো সিদ্ধান্ত পর্ষদের। পরীক্ষার পর কোয়েশ্চেন বুকলেট বাড়ি নিয়ে আসতে পারবে পরীক্ষার্থীরা। এর আগে পরীক্ষার পর উত্তরপত্র বা ও এম আর শিটের সাথে কোয়েশ্চেন বুকলেট জমা দিয়ে দিতে হতো পরীক্ষার্থীদের। কিন্তু সম্প্রতি পর্ষদ সভাপতি গৌতম পাল জানিয়েছেন, এ বছর থেকে টেট পরীক্ষায় কোয়েশ্চেন বুকলেট জমা দিতে হবে না, বরং তা নিয়ে আসতে পারবেন পরীক্ষার্থীরা ।

২০২২ এর টেট পরীক্ষায় বহু নয়া সংযোজন যুক্ত করা হয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফে। নেওয়া হয়েছে বিভিন্ন নতুন সিদ্ধান্ত। যেমন এই বছর প্রথম পরীক্ষার আগে প্রকাশিত বিস্তারিত গাইডলাইনের সাথে মডেল কোয়েশ্চেন সেট প্রকাশের মাধ্যমে প্রশ্ন কাঠামো সম্পর্কে ধারণা দেওয়া হয়েছে পরীক্ষার্থীদের। টেট পরীক্ষার গাইডলাইনে সিলেবাসের সাথে প্রকাশ করা হয়েছে বিভিন্ন বিষয়ের এই মডেল প্রশ্নপত্র। যার দ্বারা পরীক্ষার আগে পরীক্ষার্থীদের একটি সাম্যক ধারণা লাভ হবে।

এছাড়া এবছরের টেট পরীক্ষার ফলপ্রকাশের পর পরীক্ষার্থীরা তাঁদের উত্তরপত্র বা ও এম আর শিট দেখতে পাবেন। অর্থাৎ ফলাফলের সাথে উত্তরপত্রের কপি পরীক্ষার্থীদের দেখানো হবে বলেও জানা যায় পর্ষদের তরফে। এর দ্বারা পরীক্ষার্থীরা কোনও নম্বর নিয়ে অসন্তুষ্ট থাকলে উত্তরপত্রের রিভিউ ও দাবি করতে পারবেন। এছাড়া পরীক্ষায় অংশগ্রহণের যোগ্যতাতেও আনা হয়েছে পরিবর্তন। একই সাথে টেট পরীক্ষাকেন্দ্রে নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে বায়োমেট্রিক অ্যাটেনডেন্সের ব্যবস্থা, সিসিটিভি রেকর্ডিং এর ব্যবস্থা, সহ বহু নিয়মনীতি সংযোজিত হতে চলেছে চলতি বছরের প্রাইমারি টেট পরীক্ষায়।

আরও পড়ুনঃ নিয়ম না মানলে বন্ধ হবে টেট পরীক্ষা

এবার, পর্ষদের তরফে জানানো হলো সম্পূর্ণ নতুন এই সিদ্ধান্তের কথা। এদিন পর্ষদ সভাপতি গৌতম পাল জানান, এবার থেকে টেট পরীক্ষায় কোয়েশ্চেন বুকলেট বাড়ি নিয়ে আসার অনুমতি দেওয়া হবে পরীক্ষার্থীদের। অতএব পরীক্ষার পর কোয়েশ্চেন বুকলেট পরীক্ষাকেন্দ্রে জমা দেওয়ার পরিবর্তে নিজেদের সাথেই নিয়ে আসতে পারবেন পরীক্ষার্থীরা। এই বাড়তি সুবিধা এ বছরের টেট পরীক্ষা থেকেই কার্যকর হবে। পর্ষদের এহেন সিদ্ধান্তে স্বাভাবিকভাবেই খুশি পরীক্ষার্থীরা। প্রসঙ্গত, রাজ্যে ১১ই ডিসেম্বরের টেট পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে চলেছেন প্রায় সাত লক্ষ পরীক্ষার্থী, যা প্রায় রেকর্ড সংখ্যক। পর্ষদের তরফে জানানো হয়েছে যেহেতু ডিসেম্বরের শুরুতেই হতে চলেছে পরীক্ষা সেহেতু এই মাসের শেষের দিক থেকেই অ্যাডমিট কার্ড প্রদান করা হবে পরীক্ষার্থীদের।