ডি.এল.এড পরীক্ষা প্রসঙ্গে কড়া নির্দেশ পর্ষদের! উত্তরপত্র সরাসরি পৌছবে পর্ষদের মুল দফতরে

ডি.এল.এড পরীক্ষা প্রসঙ্গে কড়া নির্দেশ পর্ষদের

ডি.এল.এড পরীক্ষা প্রসঙ্গে আরও কড়া হলো পর্ষদ। ফের নয়া নির্দেশিকা জারি পর্ষদের তরফে। নির্দেশিকায় জানানো হলো, ডি.এল.এড পরীক্ষার উত্তরপত্র পরীক্ষাকেন্দ্র থেকে পর্ষদের কোনো জেলার অফিসে নয় বরং সরাসরি পৌছতে হবে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের মুল অফিসে। একই সাথে নির্দেশ, পরীক্ষার প্রতিটি উত্তরপত্র সংগ্রহ করা হবে সরকারি আধিকারিকের নজরদারিতে। এবং ডি.এল.এড পরীক্ষার উত্তরপত্রের মূল্যায়ন হবে পর্ষদের প্রধান দফতরে।

এবছরের ডি.এল.এড পরীক্ষা নিয়ে বাড়তি সতর্ক ছিল পর্ষদ। জারি করা হয় একাধিক নিয়মনীতি। তা সত্ত্বেও পরীক্ষার প্রথম দিনেই সোশ্যাল মিডিয়া মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে পরীক্ষার প্রশ্নপত্র। সংশ্লিষ্ট ঘটনাটি নিয়ে সৃষ্টি হয় জটিলতা। প্রশ্ন ওঠে পর্ষদের স্বচ্ছতা নিয়েও। এরপরই সাংবাদিক বৈঠক ডেকে ঘটনাটির তদন্তের আশ্বাস দেয় পর্ষদ। এছাড়াও ঘটনাটিকে ‘ষড়যন্ত্রের’ আখ্যা দেওয়া হয় পর্ষদের তরফে।

Primary TET Practice Set: Download Now

প্রশ্নপত্র ‘ফাঁস’ হতেই একসঙ্গে নড়েচড়ে বসে পর্ষদ ও রাজ্য। গাফিলতি রুখতে দেখা যায় তৎপরতা। পর্ষদ নির্দেশিকা জারি করে জানায়, পরের পরীক্ষার প্রশ্নপত্র সাড়ে এগারোটার আগে কোনওভাবেই পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌছবে না। এছাড়াও বলা হয়, ডি.এল.এড পরীক্ষায় ফের কোনোও গাফিলতি দেখলে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অন্যদিকে রাজ্যের তরফেও নেওয়া হয় কড়া পদক্ষেপ। জানানো হয়, ‘প্রশ্ন ফাঁস’ কান্ডে তদন্ত করবে সিআইডি। কিভাবে প্রশ্নপত্র ফাঁস হলো, কারাই বা ঘটনাটির সাথে যুক্ত এই সমস্ত বিষয় খতিয়ে দেখা হবে তদন্তে।

এরপরেই এদিন প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফে জারি হয় নতুন নির্দেশিকা। সেখানে জানানো হয়, ডি.এল.এড পরীক্ষার উত্তরপত্র সংগৃহীত হবে সরকারি আধিকারিwকদের উপস্থিতিতে। এবং উত্তরপত্র পর্ষদের জেলার অফিসের পরিবর্তে সোজা পৌছতে হবে পর্ষদের মুল দফতরে। উত্তরপত্রের মূল্যায়ন হবে সেখানেই। অতএব বোঝাই যাচ্ছে বর্তমান পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতে আরও সতর্ক হচ্ছে পর্ষদ। এবং ‘প্রশ্ন ফাঁসের’ জটিলতার পর কার্যত আর কোনো নতুন বিতর্ক চাইছে না রাজ্য।